লক্ষ্মীপুরে ‘যুবরাজ’র দাম ৮ লাখ

জমিন প্রতিবেদক ঃ লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার ২০ নং চররমনী ইউনিয়নে ১নং য়োর্ডেও গোলজার কান্দিতে ভূঁইয়া এগ্রো ফার্মে বেঁধে রাখা হয়েছে “যুবরাজকে”। যুবরাজকে দেখতে অনেক দুর দুরান্ত থেকে উৎসুক জনতা ভিড় করে। আজ মঙ্গলবার সকালে ষাড়টির ছবি তুলেছেন সবুজ জমিন প্রতিবেদক।


ভূঁইয়া এগ্রোফার্মের তত্বাবাধক আনোয়ার হোসেন শিপন ভুইয়া বলেন, শেড থেকে যখন বাইরে নিয়ে আসা হয়, তখন ৪/৫জন লোককে মোটা রশি দিয়ে গরুটিকে নিয়ন্ত্রণে আনতে গিয়ে হিমশিম খেতে হয়। গাছ বা অন্য কিছুর সঙ্গে বেঁধে না রাখলে ঘটে বিপত্তি। তখন গরুটিকে নিয়ন্ত্রণ করা খুবই দুস্কর হয়ে পড়ে। গরুটি যেদিকে যায়, তাঁদেরও সেদিকেই যেতে হয়। হাবভাব অনেকটা যুবরাজের মতো হওয়ায় এই গরুর নাম দেওয়া হয়েছে “যুবরাজ”।
এই ছাড়াও তিনি বলেন আসন্ন কোরবার উপলক্ষে এ খামারিতে দেখারমত বেশ কয়েকটি গরু উঠানো হয়েছে। তবে দাম ক্রেতাদের নিয়ন্ত্রনের মধ্যে রেখেই বিক্রয় করা হবে।

ভূঁইয়া এগ্রোফার্মের তত্বাবাধক আনোয়ার হোসেন শিপন ভুইয়া প্রতিবেদককে বলেন ঈদুল আজহায় বিক্রির জন্য সদর উপজেলার ২নং দক্ষিণ হামছাদি ইউনিয়নে গঙ্গাপুর গ্রামে সুলতান ভুঁইয়া বাড়ী সামনে গরু গুলোকে রাখা হবে। যুবরাজের ওজন ৩০ মণ। পাঁচ ফুট আট ইঞ্চি উচ্চতার ফ্রিজিয়ান জাতের এই গরুর বয়স দুই বছর চার মাস। খামারি কর্তৃপক্ষ গরুটির দাম নির্ধারণ করেছেন ৮ লাখ টাকা।