অনুমতি ছাড়া মহাসড়ক কেটে ফেলেছে এবিএম ওয়াটার কোম্পানির ইনচার্জ

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি : সড়ক ও জনপদের অনুমতি ছাড়াই রায়পুর ঢাকা মহাসড়ক কেটে ফেলার অভিযোগ উঠেছে এবি এম ওয়াটার কোম্পানির দায়িত্বরত ইনচার্জ পারভেজ হোসেনের বিরুদ্ধে । বুধবার সকাল ১১টায় লক্ষ্মীপুর আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের সামনে সড়কটি কেটে পাইব লাইন নেওয়ার চেষ্টা করে এবি এম ওয়াটার কম্পানী দায়িত্বরত ইনচার্জ পারভেজ।

সরোজমিনে গিয়ে দেখা যায়, এবি এম ওয়াটার কম্পানী দায়িত্বরত ইনচার্জ পারভেজ এর অধীস্থ রুবেল ১৫/২০ জন শ্রমিক নিয়ে মহাসড়ক কেটে পাইব নির্মাণ করিতেছে। এসময় রুবেল এর নিকট সাংবাদিকরা জানতে চাইলে শ্রামক রুবেল মহাসড়ক কাটার সড়ক ও জনপদের লিখিত কাগজ পত্র দেখাতে পারেনি। পরবর্তীতে রুবেল তার বস পারভেজ এর সাথে যোগাযোগ করার জন্য অনুরোধ করেন।

এবিষয়ে মুঠোফোনে পারভেজ সাংবাদিককে জানান, পৌরসভা থেকে মৌখিক অনুমতি পেয়ে মহাসড়ক কেটেছি। সড়ক ও জনপদের অনুমতি বিষয়ে কোন সদুত্তর দিতে পারেনি এম ওয়াটার কোম্পানির দায়িত্বরত ইনচার্জ পারভেজ।

লক্ষ্মীপুর সড়ক ও জনপদের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী মোজাম্মেল হক, সবুজ জমিনকে জানান, সড়ক ও জনপদের অনুমতি না নিয়ে এবি এম ওয়াটার কোম্পানির শ্রমিকরা মহাসড়ক কেটে ফেলছে। সেখানে গেলে শ্রমিকরা মালসামান ফেলে দৌড়ে পালিয়ে যায়। মালসামান গুলো উদ্ধার করে অফিসে নেওয়া হয় ।

লক্ষ্মীপুর সড়ক ও জনপদের নির্বাহী প্রকৌশলী সুব্রত দত্ত সবুজ জমিনকে জানান,
অবৈধভাবে মহাসড়ক কাটার দায়ে ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে মামলা করে আইনে আওতায় আনা হবে।