লক্ষ্মীপুর জেলাকে পুনরায় লকডাউন -ডিসি

স্বাস্থ্যবিধি না মানায় লক্ষ্মীপুর জেলাকে পুনরায় লকডাউন -ডিসি

বৈশ্বিক করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধে এবং সাধারন মানুষের অসচেতনা, স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণে লক্ষ্মীপুর জেলাকে (১৯মে) রোজ মঙ্গলবার থেকে পুনরায় লকডাউন ঘোষণা করেছে লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসক অঞ্জন চন্দ্র পাল । (১৮মে) সোমবার লক্ষ্মীপুর ডিসি অফিসের সরকারী ওয়েবসাইটে এক বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এই ধরনের নির্দেশনা প্রদান করা হয়েছে । জেলা প্রশাসনের প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে যে , (১৯ মে) মঙ্গলবার থেকে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সকল পৌর এলাকা সহ লক্ষ্মীপুর জেলায় সকল উপজেলার সিএনজি, অটোরিক্সা , ইজিবাইক, রিক্সা এবং, অনুমোদিত যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে । ঔষধের দোকান, মুদি দোকান, কাঁচা বাজার, খাবারের হোটেল, হাসপাতাল, প্যাথলজি এবং জরুরী সেবা ব্যাতীত সব ধরনের দোকানপাট বন্ধ থাকবে । জরুরী প্রয়োজন ব্যাতীত কোন ভাবেই বাড়ির বাহিরে না যাওয়ার জন্য নিষেদ করা হয়েছে । জরুরী প্রয়োজনে ঘরের বাহিরে বের হলে অবশ্যই মুখে মাস্ক পরে বাড়ি থেকে বের হতে হবে । বৈশ্বিক করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত (২৫ মার্চ) সমগ্র বাংলাদেশকে লকডাউন ঘোষণা করেন । তারই ধারাবাহিকতায় লক্ষ্মীপুর জেলাও লকডাউন এর আওতায় পড়ে । ছোট খাটো কিছু ভিচ্ছিন্ন ঘটনা ছাড়া লক্ষ্মীপুরের লকডাউন চলে আসছে । গত (১০মে) থেকে বাংলাদেশ সরকার ব্যবসায়ীদের লোকসান এবং ঈদের কেনাকাটা করার জন্য স্বল্প পরিসরে , সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এবং, স্বাস্থ্যবিধি মেনে ব্যবসায় প্রতিষ্ঠান খোলার অনুমতি দেন । কিন্তু, অতি দুঃখের বিষয় জনগণ এতো বেশি অসচেতন যে, বাজার খোলার সাথে সাথে আমরা অসচেতন হয়ে বাজার মুখী হয়ে গেলাম কেনাকাটার জন্য । অবশ্যই যেখানে সরকারের একটা বিধি ছিল ১৪ বছরের নিচে কোন বাচ্চাকে বাজারে আনতে পারবেনা । সেখানে ১০ মাসের কোলের শিশুকে নিয়ে ও মহিলারা বাজারে চলে আসে । কোন প্রকার সামাজিক দূরত্ব না মেনে, স্বাস্থ্যবিধি না মেনে, যে যার ইচ্ছা মত বাজার কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে । এবং, জনগণ কেনাকাটা করার জন্য বাড়ি থেকে বেরিয়ে পড়ে । আগামীতে এই ধরনের অবস্থা চলতে থাকলে করোনা ভাইরাস ছড়ানোর আশঙ্কা থাকতে পারে । এবং, সব চেয়ে বেশি করোনা আক্রান্ত হবে বলে মনে করছেন সচেতন মহল । লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসক সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে আবারো লক্ষ্মীপুর জেলাকে পুনরায় লকডাউন ঘোষণা করেন । (১৯ মে) মঙ্গলবার থেকে এই লকডাউন পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত লকডাউন থাকবে বলে জানিয়েছেন লক্ষ্মীপুর জেলা প্রসাশক অঞ্জন চন্দ্র পাল ।