ফরিদগঞ্জে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কুপিয়েছে সন্ত্রাসীরা

সবুজ জমিন প্রতিবেদক:  ফরিদগঞ্জে অস্ত্রের মোহড়া দেওয়া হয়েছে। এসময় উপজেলার বালিথুবা পূর্ব ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও উপজেলা চেয়ারম্যান সমিতির সাধারণ সম্পাদক চাঁদপুর জেলা কৃষক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এইচ এম হারুণ হামলায় মারাত্মক আহত হয়েছেন।

১৩ (ফেব্রুয়ারি) বৃহস্পতিবার বিকালে ফরিদগঞ্জ উপজেলা সদরের পূর্ব বাজারে এই ঘটনা ঘটে। আশংকা জনক অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজে ভর্তি করা হয়েছে। একই সময় বালিথুবা পুর্ব ইউনিয়ন যুব লীগের সাধারণ সম্পাদক মহসিন তপাদারও গুরুতর আহত হয়।

জানা গেছে, বৃহষ্পতিবার বিকেলে ফরিদগঞ্জ উপজেলা পরিষদের মাসিক সমন্বয় সভা ও  বিশ্বকাপ ক্রিকেট দলের দুই সদস্যের সংর্বধনা অনুষ্ঠান শেষে বিকালে বাড়ি ফেরার পথে উপজেলা সদরের পুর্ব বাজারে মার্কেন্টাইল ব্যাংকের সামনে পৌছলে এদল সন্ত্রাসীরা অস্ত্রের মোহড়া দেওয়ার সময় তার উপরে হামলা করে। তাকে অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে আহত করে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে ফরিদগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স (চতুরা) হাসপাতালে নেয়ার পর অবস্থার অবনতি হলে চাঁদপুর সদর হাসপাতালে নেয়া হয় । সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ঢাকা মেডিকেল কলেজে প্রেরণ করা হয়। অন্যদিকে যুব লীগ নেতা মহসিন তপাদার চাঁদপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

জানাজায় এমপি সমর্থিত নেতা কর্মীদেরকে চাঁদপুরে মামলার হাজিরা দিতে গেলে চাঁদপুর জেলা জর্জ কোর্ট এরিয়ায় ছাত্রলীগ, যুবলীগ নামধারী তাদের উপরে হামলা করে বলে তারা অভিযোগ করেন। তারই জের ধরে ফরিদগঞ্জে এমপি সমর্থিত যুবলীগ ও তাঁর অঙ্গসহযোগী সংগঠনের লোকজন দেশীয় অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে উপজেলা সদরের প্রধান সড়কগুলি মহড়া দিয়ে থাকেন। এ সময় বালিথুবা পূর্ব ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হারুনুর রশিদকে সামনে পেয়ে তার উপরে হামলা করেছেন বলে জানান স্থানীয় লোকজন। পরে ফরিদগঞ্জ থানা পুলিশের সহযোগীতায় ঘটনা নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হন। সন্ধ্যায় চাঁদপুর জেলা ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান ফরিদগঞ্জে এসে ঘটনাস্থলটি পরিদর্শন করেন