লক্ষ্মীপুরের ৪টি আসনে আওয়ামীলীগ ও মহাজোট প্রার্থীরা বিজয়ী

 

সবুজ জমিন ডেস্ক: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে লক্ষ্মীপুরের ৪টি আসনে আওয়ামীলীগ ও মহাজোট প্রার্থীরা জয়লাভ করেছেন। ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থীদের চেয়ে বিপুল ভোটের ব্যবধানে বিজয়ী হয় মহাজোট প্রার্থীরা।

বিজয়ীরা হলেন, লক্ষ্মীপুর-১ রামগঞ্জ আসনে মহাজোটের প্রার্থী ড. আনোয়ার হোসেন খাঁন, লক্ষ্মীপুর-২ রায়পুর-সদর আংশিক আসনে মহাজোট সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী শহীদ ইসলাম পাপুল, লক্ষ্মীপুর-৩ সদর আসনে আওয়ামীলীগের এ কে এম শাহজাহান কামাল, লক্ষ্মীপুর-৪ রামগতি-কমলনগর আসনে মহাজোটের প্রার্থী মেজর (অবঃ) আবদুল মান্নান।

মহাজোট ও ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থীরা কে কত ভোট পেলেন..

সংসদীয় আসন ২৭৪, লক্ষ্মীপুর-১ রামগঞ্জ
লক্ষ্মীপুর-১ রামগঞ্জ আসনে মহাজোটের প্রার্থী ড. আনোয়ার হোসেন খান ১৮৫৪৩৮ ভোট পেয়ে বে-সরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী লিবারেল ডেমোক্রেটিক এলডিপি সমর্থিত শাহাদাত হোসেন সেলিম (মার্কা-ধানের শীষ) পেয়েছেন ৩৮৯২ ভোট। মোশারফ হোসেন ন্যাশনাল পিপলস পার্টি সমর্থিত প্রার্থী (মার্কা-আম) ৪৬৯ ভোট, বাংলাদেশ জাতীয় পাটি আলমগীর হোসেন (মার্কা-কাঠাল) ৪৯ ভোট, মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম ইসলামী আন্দোলন (মার্কা- হাতপাখা)-২৮০৯ ভোট, মোহাম্মদ সিরাজ মিয়া ন্যাশনালিস্ট বিএপপ পার্টি সমর্থিত (মার্কা-টেলিভিশন) ৪০৭ ভোট, রেজাউল করিম বাংলাদেশ মুসলিম লীগ (মার্কা-হারিকেন) ৩৩ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন।

সংসদীয় আসন ২৭৫, লক্ষ্মীপুর সদর একাংশ ও রায়পুর-০২
লক্ষ্মীপুর-২ রায়পুর-সদর আংশিক আসনে মহাজোট সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী শহীদ ইসলাম পাপুল (মার্কা-আপেল) ২৫৬৭৮৪ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী প্রার্থী ঐক্যফ্রন্টের আবুল খায়ের ভূঁইয়া (মার্কা-ধানের শীষ) ২৮০৬৫ ভোট ৮২০ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন । জাতীয় পাটি মোহাম্মদ নোমান (মার্কা-নাঙ্গল) ৮২০ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন , বাংলাদেশ মুসলিম লীগ সমর্থিত প্রার্থী ফয়েজ উল্ল্যাহ শিপন (মার্কা-হারিকেন) ১১৩৪ ভোট পেয়েছেন পরাজিত হয়েছেন। ইসলামী ফ্রন্ট বাংলাদেশ মোহাম্ম হেলাল উদ্দিন (মার্কা-চেয়ার) ১১০৫ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন , ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ (হাত পাখা) শাহজান পাটোওয়ারী ৩৩৮৮ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন।

সংসদীয় আসন ২৭৬, লক্ষ্মীপুর-৩ সদর আসনে
লক্ষ্মীপুর-৩ সদর আসনে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সমর্থিত এ কে এম শাহজাহান কামাল (মার্কা-নৌকা) ২৩৩৭২৮ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী প্রার্থী ঐক্যফ্রন্টের শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী (মার্কা-ধানের শীষ) পেয়েছেন ১৪৪৯২ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন। বাংলাদেশ জাতীয় পাটি (মার্কা-কাঠাল) সমর্থিত নুর মোহাম্মদ পেয়েছেন ৮২২ ভোট, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ (মার্কা-হাতপাখা) সমর্থিত মো: ইব্রাহিম ৪০৯৪ ভোট, ন্যাশনাল পিপলস পার্টি (মার্ক-আম) সমর্থিত সেলিম মাহমুদ পেয়েছেন ১৯২৪ ভোট।

সংসদীয় আসন ২৭৭, লক্ষ্মীপুর-৪ রামগতি ও কমলনগর আসন
লক্ষ্মীপুর-৪ রামগতি-কমলনগর আসনে মহাজোটের প্রার্থী (বিকল্পধারা বাংলাদেশ পার্টি) মেজর (অবঃ) আবদুল মান্নান (মার্কা-নৌকা) ১৮৩৯০৬ ভোট পেয়ে বেসরকারী ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থী (জাতীয় সমাজকন্ত্রীক দল জেএসডি) (মার্কা-ধানের শীষ) আ স ম আবদুর রব পেয়েছেন ৪০৯৭৩ ভোট। বাংলাদেশ জাতীয় পাটি সমর্থিত আব্দুর রাজ্জাক (মার্ক-কাঠাল) পেয়েছেন ৩৫১ ভোট। জাতীয় সমাজতন্ত্রিক দল জেএসডি সমর্থিত প্রার্থী তানিয়া রব (মার্কা-তারা) পেয়েছেন ১৫৯ ভোট। বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ সমর্থিত প্রার্থী মিলন মন্ডল (মার্কা-মই) পেয়েছেন ৫৮৭ ভোট। ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ সমর্থিত (মার্কা- হাতপাখা) মোহাম্মদ শরিফুল ইসলাম পেয়েছেন ৩৬৩৭ ভোট।

লক্ষ্মীপুর-৩ সদর আসনে বিজয়ী আওয়ামীলীগের প্রার্থী বেসরকারী বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রী এ কে এম শাহজাহান কামাল নির্বাচনে জয়ের পরে এক প্রতিক্রিয়ায় বলেন, জনগণ শান্তি ও উন্নয়নের পক্ষে রায় দিয়েছে। তিনি তার বিজয়কে লক্ষ্মীপুরবাসীর জন্য উৎসর্গ করেন।